সাপ্তাহিক ছুটির দিনে বাড়তি আয়ের জন্য যে ব্যবসা করবেন

সাপ্তাহিক ছুটির দিনে বাড়তি আয়

সাপ্তাহিক ছুটির দিনে বাড়তি আয়ের জন্য যে ব্যবসা করবেন

সাপ্তাহিক ছুটির দিনে বাড়তি আয়ের জন্য যে ব্যবসা করবেন

আপনি কি একটি ব্যবসা শুরু করতে চান কিন্তু পূর্ণ সময় দিতে পারবেন না? চিন্তা করবেন না। বর্তমানে প্রচুর ব্যবসার সুযোগ রযেছে যে গুলো শুরু করে আপনি সাপ্তাহিক ছুটির দিনে বাড়তি আয়ের জন্য একটি পথ বানাতে পারবেন। সপ্তাহের ছুটির দিন গুলোকে লক্ষ্য করে আপনি একটি ব্যবসা শুরু করতে পারেন। সপ্তাহের ছুটির দিন গুলোতে পরিচালনা করা যায় এমন লাভজনক ব্যবসার ধারণা নিচে দেওয়া হলো।

বিবাহ ফটোগ্রাফার

আমাদের দেশে সাধারনত বেশীর ভাগ বিয়ে সপ্তাহের ছুটির দিনে হয়ে থাকে। আপনার যদি ছবি তোলার জন্য ভাল একটি ক্যামেরা ও দক্ষতা থাকে তাহলে বিবাহ ফটোগ্রাফার হিসাবে সাপ্তাহিক ছুটির দিনে বাড়তি আয়ের এই ব্যবসা করতে পারেন। এই ব্যবসাটি পরিচালনা করতে সুন্দর ছবি তোলা ও ফটো ইডিটিং এর অভিজ্ঞতা থাকতে হবে। আরো পড়ুন – বিবাহ ভিত্তিক ব্যবসার ধারনা।

ব্লগার

ব্লগিং এমন একটি আয়ের পথ যা আপনি আপনার নিজস্ব সময়সূচি দ্বারা পরিচালনা করতে পারেন। তাই আপনি একটি ব্লগ শুরু করে প্রতি সপ্তাহের বাড়তি সময় গুলোতে পোস্ট করতে পারেন। ধৈর্য সহকারে পরিশ্রম করতে পারলে ভাল টাকা আয় করতে পারবেন। যেসব বিষয়ে আপনি দক্ষ সেই বিষয়ে ব্লগিং করতে পারেন।

সাপ্তাহিক ছুটির দিনে যন্ত্রপাতি পরিস্কার করে টাকা আয় করুন

আমাদের দেশের প্রেক্ষাপটে এটি একটি অনন্য ব্যবসার ধারনা। একটি অ্যাপ বা ওয়েবসাইট খুলে আপনি আপনার সেবার কথা জানান দিতে পারেন। বারবিকিউ মেশিন, এসি, ফ্রিজ, ওভেন, ইত্যাদি পরিস্কার করে নিদিষ্ট রেটে টাকা আয় করা যায়। গ্রাহক পেতে অনলাইনে বিজ্ঞাপন চালাতে পারেন।

আর্টিকেল রাইটার

যে অন্যের হয়ে নিদিষ্ট বিষয়ের উপর প্রবন্ধ বা আর্টিকেল লিখে দেয় সেই আর্টিকেল রাইটার। নিজের দক্ষতা কাজে লাগিয়ে আপনি আর্টিকেল রাইটার হিসাবে কাজ করতে পারেন। বাসায় বসে এই কাজ করা যায় এবং ছুটির দিন খুব সুন্দর করে কাজে লাগানো যায়। তাছাড়া একজন আর্টিকেল রাইটার হিসাবে কাজ করলে আপনার জ্ঞান ও দক্ষতা দু’ই বাড়বে।

গ্রাফিক্স ডিজাইন

গ্রাফিক্স ডিজাইনের কাজ করে আপনি আপনার সাপ্তাহিক ছুটির দিন গুলো ব্যয় করতে পারেন। আপনার সীমিত সময়সূচির জন্য সীমিত গ্রাহক সংখ্যা নিশ্চিত করতে হবে।

পরিবহন সেবা প্রদানকারী

পাঠাও বা উবারের মতো সাইট গুলো ব্যবহার করে আপনি গ্রাহকদেরকে পরিবহন সেবা প্রদান করতে পারেন। আপনি চাইলে নিজের গাড়ি সাপ্তাহিক বিভিন্ন অনুষ্ঠানে ভাড়া দিয়ে এই ব্যবসাটি পরিচালনা করতে পারেন। জেনে নিন – গাড়ি ভিত্তিক ব্যবসার ধারনা

অনলাইন কোর্স

প্রতি সপ্তাহান্তে বিভিন্ন অনলাইন কোর্স বা প্রশিক্ষণ কার্যক্রম তৈরি করে তা অনলাইনে বিক্রি করে এই ব্যবসাটি পরিচালনা করতে পারেন। আপনি যেই বিষয়ের উপর পারদর্শী সেই বিষয়ের উপর কোর্স বানাতে পারেন। এটি একটি ধীর গতির ব্যবসা হলেও সারা জীবন আয় করা যায়।

সঙ্গীতবিদ

ভাল গান গাইতে পারেন? বিবাহের অনুষ্ঠান বা বিভিন্ন ইভেন্টে সঙ্গীত পরিবেশন করে বিনোদন দিতে পারেন। এই কাজটি আপনি দলগত ভাবেও করতে পারেন অথবা একক ভাবেও করতে পারেন।