কিভাবে ব্যবসার জন্য বিজনেস পার্টনার নির্বাচন করবেন

ব্যবসার জন্য বিজনেস পার্টনার নির্বাচন

কিভাবে ব্যবসার জন্য বিজনেস পার্টনার নির্বাচন করবেন

একটি ব্যবসার জন্য আদর্শ বিজনেস পার্টনার নির্বাচন করা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। তবে আপনাকে একটি বিষয় মেনে নিতে হবে তা হল কোন বিজনেস পার্টনার শতভাগ পারফেক্ট হতে পারে না। শতভাগ পারফেক্ট না হউক তবে তার মধ্যে কিছু বিষয় অবশ্যই থাকতে হবে। আসুন জেনে নেই কি গুন দেখে ব্যবসার জন্য বিজনেস পার্টনার নির্বাচন করবেন।

#১। একই রকম ক্ষুধা।

আপনি যখন একটি ব্যবসা শুরু করবেন তখন অবশ্যই সেই ব্যবসাটিকে সফল করার জন্য সর্বোচ্চ চেষ্টা করবেন। আপনার যেমন ব্যবসাটির প্রতি ভালো লাগা কাজ করবে ঠিক তেমনি আপনার বিজনেস পার্টনারের মধ্যে এই একই রকম ভালো লাগা থাকতে হবে।

#২। দক্ষতা খুঁজে বের করা।

আমি বিশ্বাস করি, এই বিশ্বে প্রায় সকল মানুষ কোন না কোন কাজে দক্ষ। ধরুন আপনি ভালো হিসাব বুঝেন তবে আপনার এমন একজন বিজনেস পার্টনার দরকার যিনি ভালো কাস্টমার সার্ভিস দিতে জানে।

অর্থাৎ, আপনি যেই বিভাগে দক্ষ আপনার বিজনেস পার্টনার তার বিপরীত দিকে দক্ষ হতে হবে, যা দিন শেষে আপনার ব্যবসাটিকে সফল করতে সাহায্য করবে।

#৩। অভিজ্ঞতা খুঁজে বের করা।

আপনার নিজের অভিজ্ঞতা থাকুক বা নাই থাকুক, যখন বিজনেস পার্টনার নিবেন তখন আপনাকে অবশ্যই অভিজ্ঞতায় ফোকাস করতে হবে।

ধরুন, আপনি যেই ব্যবসাটি শুরু করতে চাচ্ছেন সেই ব্যবসায় আপনার কোন অভিজ্ঞতা নেই এবং আপনি যাকে বিজনেস পার্টনার হিসাবে নিলেন তিনিও সম্পূর্ণ নতুন, এর ফলে আপনার ব্যবসাটি কিন্তু ভরাডুবি হতে পারে। তাই বিজনেস পার্টনার নির্বাচন করার ক্ষেএে অবশ্যই অভিজ্ঞতায় নজর দিতে হবে।

#৪। আর্থিক শক্তি আছে এমন কাউকে বিজনেস পার্টনার হিসাবে নির্বাচন করুন।

এটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ, অনেক সময় আমাদের মধ্যে এমনটি ঘটে যে, আমরা আমাদের খুবই কাছের মানুষদেরকে বিজনেস পার্টনার নির্বাচন করি এবং তার মধ্যে আর্থিক শক্তি বা বিনিয়োগ করার মত টাকা আছে কিনা তা যাচাই করি না।

এর ফলে আমাদের ব্যবসাটি সফল নাও হতে পারে, কেননা যখন কোন পার্টনার নিজেই শ্রম দেওয়ার পাশাপাশি টাকা বিনিয়োগ করবে তখন তিনি সেই ব্যবসার সকল কাজ আরো বেশী মনোযোগ দিয়ে করবে। আরোপ পড়ুন – প্রথম বার ব্যবসা শুরু করার জন্য লোন নিব না নিজের টাকায় ব্যবসা করব?

#৫। ব্যক্তিগত গুনাবলী খুঁজে বের করুন।

আপনি যার সাথে পার্টনারশীপে ব্যবসা করতে চাচ্ছেন তাকে অবশ্যই সৎ হতে হবে, সিদ্ধান্ত গ্রহনে দক্ষ হতে হবে এবং যথেষ্ট পরিশ্রমী হতে হবে।

এছাড়া পার্টনারশীপের চুক্তি করে পার্টনার নিতে হবে। যখন আপনি সকল দিক বিবেচনা করে পার্টনার নির্বাচন করবেন তখন আপনাকে অবশ্যই লিখিত চুক্তি করে নিতে হবে। বিশেষভাবে যদি কোন পার্টনার ব্যবসা ছেড়ে দেয় তবে কি হবে, কোন একজন পার্টনার মারা গেলে তার ব্যবসার মালিক কে হবে, কিভাবে পার্টনারশীপ ব্যবসা বিক্রি করতে ইত্যাদি গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ের সমাধান রাখতে হবে। – কে এম চিশতি সিয়াম – ইউটিউব লিঙ্ক