কিভাবে নিজের ব্যবসাকে ধ্বংস করা যায়

নিজের ব্যবসাকে ধ্বংস করার উপায়!

কিভাবে নিজের ব্যবসাকে ধ্বংস করা যায়

একজন উদ্যোক্তা হিসাবে নিজের ব্যবসা শুরু করে অবশ্যই চাইবেন না আপনার ব্যবসাটি ধ্বংস হয়ে যাক। কিন্তু আজকের এই আর্টিকেলে আমি আপনার সাথে কিভাবে নিজের ব্যবসাকে ধ্বংস করা যায় তার কিছু উপায় তুলে ধরতে চাই।

যদি আপনি সত্যি আপনার ব্যবসাটিকে ধ্বংস করতে না চান তবে এই উপায়গুলো এড়িয়ে চলতে হবে। আর্টিকেলটি সম্পূর্ণ পড়লে আপনি বুঝতে পারবেন, কিভাবে আপনার ব্যবসাটিকে ধ্বংসের হাত থেকে রক্ষা করবেন।

#১। ব্যবসার শুরুতে লোন করা

ব্যবসা করতে গেলে অনেক সময় আমাদের কাছে পর্যাপ্ত টাকা থাকে না। টাকা যোগান দেওয়ার জন্য আমরা লোন করে থাকি, তবে আপনি যদি ব্যবসার শুরুতেই লোন করেন কিংবা লোনের টাকা দিয়ে ব্যবসা শুরু করতে চান তবে ব্যবসাটি ব্যর্থ হওয়ার সম্ভবনা অনেক বেশী থাকবে।

হয়ত আপনার কাছে এই রকম উদাহরন থাকতে পারে যে, লোন করে অনেকেই ব্যবসাটিকে সফল করেছে, কিন্তু তাদের সেই পেক্ষাপট এবং বিজনেস আইডিয়া আপনার সাথে মিল নাও থাকতে পারে।

#২। বাকিতে পণ্য বিক্রি করা

আপনি যদি খুব তাড়াতাড়ি আপনার ব্যবসার সুনাম চারদিকে ছড়িয়ে দিতে চান তবে বাকীতে পণ্য বিক্রি করতে পারেন।

ব্যবসার শুরুতে বাকিতে পণ্য বিক্রি করলে খুব তাড়াতাড়ি আপনার পণ্যের ঘাটতি দেখা দিবে, তখন যদি আপনার কাছে টাকা না থাকে তাহলে পুনরায় পণ্য কিনতে পারবেন না।

এর ফলে আপনি খুব সহজেই আপনার নিজের ব্যবসাকে ধ্বংস করতে পারবেন। যদি এমনটি না চান তবে বাকিতে পণ্য বিক্রি করা বন্ধ করতে হবে।

 

#৩। অতিরিক্ত কিংবা অনেক কম কর্মী নিয়োগ দেওয়া

একক মালিকানার কিছু ব্যবসা ছাড়া প্রায় সকল ব্যবসায় কর্মী লাগে। আপনি যদি আপনার চাহিদা না বুজে কর্মী নিয়োগ দেন তবে আপনার ব্যবসা আপনাকে হতাশ করতে পারে।

 

#৪। বিজনেস প্ল্যান ছাড়া ব্যবসা শুরু করা

নিজের ব্যবসাকে ধ্বংস করার আরেকটি অন্যতম সেরা উপায় বিজনেস প্ল্যান ছাড়া ব্যবসা শুরু করা। মূলত একটি বিজনেস প্ল্যান একটি রোডম্যাপের কাজ করে।

আপনি যদি সাগরে বিশাল একটি জাহাজ ভাসিয়ে দেন এবং কোন গন্তব্য ঠিক না করেন তবে আপনার জাহাজ একই জায়গায় ঘুরপাক খাবে এবং তেল শেষ হয়ে গেলে থেমে যাবে। ঠিক তেমনি একটি বিজনেস না থাকলে ব্যবসা কিছুদিন চালানো যাবে কিন্তু সফল করা যাবে না।

 

#৫। গ্রাহকরা কী চায় তা বুঝতে ব্যর্থ হওয়া

যে কোনও একটি ব্যবসার মূল কেন্দ্রবিন্দু হলো আপনার গ্রাহক। আপনাকে গ্রাহকের চাহিদা বুজতে হবে। জোড় করে আপনি কোনও পণ্য বা সেবা বিক্রি করতে পারবেন না, গ্রাহকের সমস্যার সমাধান করতে হবে, গ্রাহকের সমস্যার সমাধান করতে পারলেই আপনার ব্যবসাটি সফল হবে।

 

#৬। অন্য ব্যবসাকে অন্ধভাবে কপি করা

একজন সফল ব্যবসায়ী প্রতিযোগিদের ব্যবসা ফলো করে, তারা কিভাবে ব্যবসা করে তা জানার চেষ্টা করে কিন্তু কখনই অন্ধভাবে তাদের ব্যবসাকে কপি করে না।

 

#৭। হিসাব না রাখা

নিজের ব্যবসাকে ধ্বংস করার এটি একটি চমত্কার উপায়। হিসাব না রেখে ব্যবসা করলে মূলধন কিছুদিনের মধ্যে হারিয়ে যাবে।

সাধারনরত বড় ব্যবসাগুলো অটোমেটিক সিস্টেমে তাদের হিসাব মিলিয়ে নেয়, কিন্তু সমস্যা হয় ছোট ব্যবসায়। অনেক সময় ছোট ব্যবসায় মালিকগন এই বিষয়টা সম্পূর্ণ এড়িয়ে যায়, যার ফলে ব্যবসাটি ধ্বংস হতে পারে।

তাই পরিশেষে বলা যায়, যদি আপনি আপনার ব্যবসাকে ধ্বংসের হাত থেকে রক্ষা করতে চান তবে ব্যবসার শুরুতে লোন করা যাবে না, বাকিতে পণ্য বিক্রি করা যাবে না, চাহিদা বুজে কর্মী নিয়োগ দিতে হবে, বিজনেস প্ল্যান করতে হবে, গ্রাহকের চাহিদা বুজতে হবে, অন্যের ব্যবসা কপি করা যাবে না এবং ব্যবসার হিসাব রাখতে হবে। – কে এম চিশতি সিয়াম – ইউটিউব লিঙ্ক